গানে নারীদের অপমান করায় হানি সিং গ্রেফতার

বিনোদন

গানের সংলাপে নারীদের অপমান ও অশ্লীল শব্দ ব্যবহার করায় ভারতের পাঞ্জাবের জনপ্রিয় ব়্যাপার হানি সিংকে গ্রেফতার করা হয়ছে। একই অভিযোগ আনা হয়েছে সংগীত প্রযোজক ভূষণ কুমারের বিরুদ্ধেও।

সম্প্রতি সামাজিক মাধ্যমে ভাইরাল হওয়া ‘মাখনা’ গানের জন্য ভ্ক্তদের রোষানোলে পড়েছেন হানি সিং। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ, ‘ম্যায় হুঁ ওম্যানাইজার’, ‘সিলিকন ওয়ালি লড়কিয়োঁকো ম্যায় পটাতা হুঁ’র মতো বেশ কয়েকটি লাইন রয়েছে এই গানে, যা অত্যন্ত আপত্তিকর। আর সেই কারণেই পাঞ্জাবের নারী কমিশনের তরফে তার বিরুদ্ধে অভিযোগ জানানো হয়।

হানি সিংয়ের গাওয়া ‘মাখনা’ গানটি গত বছর ২১ ডিসেম্বর টি-সিরিজের ইউটিউব চ্যানেল এসেছে। এরপর গানটি দেখা হয়েছে ২১ কোটি ৬ লাখ ৮২ হাজার ৬৪১ বার। পাঞ্জাব নারী কমিশন অভিযোগ জানিয়েছে, হানি সিং তার এই গানে নারীদের নিয়ে অশ্লীল রসিকতা করেছেন, যা খুবই অপমানজনক। হানি সিংসহ এই গানের সঙ্গে যারা জড়িত, তাদের সবার বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়ার জন্য দাবি জানিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

পাঞ্জাবের নারী কমিশনের চেয়ারপারসন মণীষা গুলাটি সংবাদমাধ্যকে জানান, পাঞ্জাব পুলিশের ডিরেক্টর জেনারেল, ইন্সপেক্টর জেনারেল ও অ্যাডিশনাল চিফ সেক্রেটারির কাছে এ নিয়ে অভিযোগ করা হয়েছে। হানি সিং তার গানে এমন কিছু কথা ও শব্দ ব্যবহার করেছেন, যা নারীদের জন্য অত্যন্ত অপমানজনক।

গানের এমন কথার জন্য টি-সিরিজের ভূষণ কুমার, গায়ক হানি সিং ও গায়িকা নেহা কক্করের বিরুদ্ধে পুলিশি তদন্তের দাবিও জানান মণীষা গুলাটি। সেই সঙ্গে তিনি সেন্সর বোর্ডেও অভিযোগ জানান। পাঞ্জাবে গানটির ওপর নিষেধাজ্ঞা জারির দাবি তুলে রাজ্য সরকারের দ্বারস্থ হয়েছেন মণীষা। মোহালির মাতাউর থানায় লিখিত অভিযোগ করা হয়।

মোহালির সিনিয়র এসপি হরচরণ সিং ভুল্লার বলেন, ভারতীয় দণ্ডবিধির ২৯৪ এবং ৫০৯ নম্বর ধারায় হানি সিংয়ের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে।

গানের কথা নিয়ে বিতর্কে জড়ানোর ঘটনা হানি সিংয়ের প্রথম নয়। এর আগে ২০১৩ সালেও একবার গানের কথা নিয়ে বিতর্কে জড়ান তিনি। ওই গানটিতে হানি সিং লিখেছিলেন, ‘ম্যায় হুঁ বলৎকারি’। এছাড়া ‘লাক ২৮’, ‘ব্লু আইজ’, ‘কিকলিকালেরেদ্রি’ ও ‘ব্লাউন রং’ গান নিয়েও বিতর্কে জড়িয়েছিলেন বলিউডের জনপ্রিয় এই ব়্যাপার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *